ঢাকা, আজ বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১

রাসুলের সীরাত ও সুন্নত ব্যাতিত ইসলাম টিকে থাকতে পারে না: এরদোগান

প্রকাশ: ২০১৯-০৭-১৬ ২১:০২:১৬ || আপডেট: ২০১৯-০৭-১৬ ২১:০২:১৬

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, রাসুলের সুন্নত ও সীরাত ব্যাতিত ইসলাম টিকতে পারে না। এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এরদোগান এসব কথা বলেন। এরদোগান এসব কথা বলেন।

এরদোগান আরো বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের জীবনবিধান সকলের জন্য আদর্শ স্বরূপ। বর্তমান এবং ভবিষ্যত প্রজন্মকে রাসুলের আদর্শ থেকে অনুপ্রাণিত হতে হবে।

তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লালাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম শুধু মুসলিম উম্মাহের জন্য আদর্শ নন। তিনি সারা বিশ্বের জন্য মানবতার ধারক-বাহক হিসেবে প্রেরিত হয়েছিলেন। তিনি আরো বলেন,

রাসুলুল্লাহ সাল্লালাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের সুন্নত ও সীরাতের সাথে মানুষ যতবেশি সম্পৃক্ত হবে দ্বীনের সাথের তার সম্পর্কটা ততটা গভীর হবে। আশাকরি আমরা আমাদের জীবনের প্রতিটা অধ্যায়ে নবীর আদর্শকে বাস্তবায়নের চেষ্টা করবো।

তাইওয়ানে অস্ত্র বিক্রি: মার্কিন কোম্পানিকে নিষেধাজ্ঞার হুমকি দিল চীন

তাইওয়ানের কাছে অস্ত্র বিক্রির সঙ্গে জড়িত মার্কিন কোম্পানির ওপর অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার হুমকি দিয়েছে চীন। আজ (সোমবার) চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানিয়েছে,

তাইওয়ানের কাছে অস্ত্র বিক্রির সঙ্গে জড়িত মার্কিন প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চীন সরকার ও চীনা কোম্পানিগুলো সম্পর্ক ছেদ করবে। স্বায়ত্ত্বশাসিত তাইওয়ানকে বরাবরই চীন নিজের ভূখণ্ড বলে দাবি করে আসছে।

তাইওয়ানকে চীন সবচেয়ে স্পর্শকাতর বিষয়গুলোর একটি হিসেবে বিবেচনা করে থাকে। এ কারণে তাইওয়ানের সঙ্গে আমেরিকার সরাসরি ব্যবসায়িক সম্পর্কে চীন সরকার আপত্তি জানিয়ে আসছে।

গত সপ্তাহে পেন্টাগন ঘোষণা দেয়, তারা তাইওয়ানের কাছে অস্ত্র বিক্রির বিষয়টি অনুমোদন করেছে। সর্বশেষ চুক্তি অনুযায়ী, তাইওয়ান আমেরিকার কাছ থেকে ২২০ কোটি ডলার মূল্যের ট্যাংক, ক্ষেপণাস্ত্রসহ বিভিন্ন সামরিক সরঞ্জাম কিনবে।

চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র গেং শুয়াং
আজ সোমবার নিয়মিত সংবাদ ব্রিফিংয়ে চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র গেং শুয়াং বলেন, “এই অস্ত্র বিক্রি আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন এবং চীনের সার্বভৌমত্ব ও জাতীয় নিরাপত্তার জন্য বড় হুমকি।

এর সঙ্গে যুক্ত মার্কিন কোম্পানিগুলোর সঙ্গে চীন সরকার এবং চীনা প্রতিষ্ঠান কোনো ধরনের সহযোগিতা বা বাণিজ্য সম্পর্ক রাখবে না। এই মুহূর্তে এ বিষয়ে বিস্তারিত আর কিছু বলা সম্ভব নয়। তবে আমি বিশ্বাস করি, চীনের মানুষ সব সময় তাদের কথা রাখে।”

এর আগে গতকাল রোববার চীনের ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টির মুখপত্র পিপল’স ডেইলিতে প্রকাশিত প্রতিবেদনে চীনের নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়তে পারে এমন কিছু মার্কিন কোম্পানির নাম উঠে আসে।

এর মধ্যে রয়েছে হানিওয়েল ইন্টারন্যাশনাল ইনকরপোরেশন, যা আব্রামস ট্যাংকের ইঞ্জিন প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান। এই আব্রামস ট্যাংক তাইওয়ানকে সরবরাহ করছে যুক্তরাষ্ট্র। এ তালিকায় রয়েছে-

ব্যক্তিগত উড়োজাহাজ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান গালফস্ট্রিম অ্যারোস্পেস, যা জেনারেল ডাইনামিকসের একটি প্রতিষ্ঠান। এ দুটি প্রতিষ্ঠানেরই গুরুত্বপূর্ণ বাজার চীন। গুরুত্বপূর্ণ বাজার চীন।