ঢাকা, আজ রোববার, ১ নভেম্বর ২০২০

চার মাসের শিশু সন্তানকে নিয়ে ৮ দিন ধরে একাধিক হাসপাতালে ঘুরেও চিকিৎসা মিলছে না

প্রকাশ: ২০২০-০৭-০১ ১৮:৩৬:৫৪ || আপডেট: ২০২০-০৭-০১ ১৮:৩৬:৫৪

নিউজ ডেস্ক : করোনাকালে চট্টগ্রামে সাধারণ রোগে আক্রা’ন্ত কিংবা দু’র্ঘটনায় আহ’ত শিশুদের চিকিৎসা পেতে চ’রম ভোগা’ন্তির শি’কার হতে হচ্ছে। দিনের পর দিন, হাসপাতালের পর হাসপাতাল ঘুরেও চিকিৎসা পাচ্ছে না তারা।
null

null

null
বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের চেম্বার বন্ধ আর হাসপাতালগুলোতে নানা জ’টিলতায় শিশুদের চিকিৎসা দিতে আগ্রহী হচ্ছেন না ডাক্তাররা। তবে অভিজ্ঞ চিকিৎসকরা বলছেন, বিশেষ কৌশল করে হলেও শিশুদের চিকিৎসা নিশ্চিত করতে হবে।
null

null

null
লক্ষীপুরের কামাল হোসেন এবং তার স্ত্রী গত ৮দিন ধরে চার মাসের শিশু সন্তানকে নিয়ে হাসপাতাল থেকে হাসপাতালে ঘুরছেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত চিকিৎসার কোনো সুব্যবস্থা করতে পারেননি।

শিশুটির পিতা-মাতা জানায়, ডাক্তার-নার্সরা সহনশীল আচরণ করছে না। ডাক্তার পাওয়া যায় না। নার্সদের কাছে জানতে চাইলে কোনো উত্তর null

null

nullদেয় না। শত শত অভিভাবক তাদের শিশু সন্তানদের নিয়ে ঘুরছেন এক হাসপাতাল থেকে আরেক হাসপাতালে। এমনকি দুর্ঘ’টনায় কবলিত শিশুরাও চিকিৎসা সেবা নিতে ভোগান্তির শি’কার হচ্ছে।
null

null

null
করোনা সং’ক্রমণ শুরু হওয়ার পরপরই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা চেম্বারে আসা বন্ধ করে দেন। ফলে সরকারি হাসপাতালগুলোই এখন চিকিৎসার একমাত্র ভরসা। কিন্তু সেখানেও মিলছে না সেবা।

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন মাতৃসদন হাসপাতালের শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. সুশান্ত বড়ুয়া জানান, করোনা ফ্লু নাকি সাধারণ ফ্লু এটা যেহেতুnull

null

null পার্থক্য করা যাচ্ছে না, এ কারণে আমাদের শিশুরা খুবই ঝুঁ’কিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। হাসপাতালগুলোতে কোভিড বা ননকোভিড কর্নার করে স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে হবে। শিশু রোগীদের চিকিৎসা নিশ্চিতের জন্য বিশেষ কৌশল নেয়ার কথা বলছেন চিকিৎসক শিক্ষকরা।null

null

null

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডা. নাসির উদ্দিন মাহমুদ জানান, ক্লিনিক্যালি টেস্ট করে রোগীর সঠিক চিকিৎসা করাতে হবে।
৭০ লাখ নগরবাসীর চট্টগ্রামে শিশুদের জন্য বিশেষায়িত কোনো হাসপাতাল নেই।