ঢাকা, আজ রোববার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০

প্রবাসীদের নিয়ে নাঙ্গলকোটের ইউপি মেম্বার জুলাসের কটুক্তি

প্রকাশ: ২০২০-০৫-২৯ ১০:২৫:৪৯ || আপডেট: ২০২০-০৫-২৯ ১০:২৫:৪৯

নাঙ্গলকোটের জুলহাস নামক এক ইউপি মেম্বার রেমিটেন্স যোদ্ধা হিসেবে খ্যাত প্রবাসীদের নিয়ে কটুক্তি করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে ব্যাপক সমালোচিত হয়েছেন। তাকে নিয়ে গত কয়েকদিন থেকে দেশ-বিদেশে প্রতিবাদের ঝড় বয়ে যাচ্ছে। জানা যায়, জুলহাস নাঙ্গলকোটের জোড্ডাnull

null

null ইউনিয়নের জোড্ডা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি জোড্ডা পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার। গত কয়েকদিন আগে জুলহাস তার ফেসবুক ওয়ালে প্রবাসীদের নিয়ে একটি মনগড়া বিরূপ স্ট্যাটাস দেন। তাতে তিনি null

null

nullলিখেন ‘বিদেশে কোয়ারেন্টাইনে বসে বসে রাজনীতিবিদ-সমাজকর্মী চেয়ারম্যান-মেম্বারদের বিরুদ্ধে লেখেন। একবার চিন্তা করেছেন, আপনি বেতন পান ১৫০০ দেরহাম বা ১৫০০ রিয়াল যে দেশে যে থাকেন সেই অনুযায়ী। খরচপাতি যাওয়ার পর কি থাকে আমরা জানি। কিন্তু মাসের শেষে বাড়ি যখন ৫০০০০ টাকা পাঠান তখন এই টাকা কোথায় থেকে null

null

nullআসে। মানি আলগা রুজি। আলগা রুজি মানি চুরি। চোরের লম্বা কথা বলা বন্ধ করুন ।’ জুলহাস মেম্বার এ স্ট্যাটাসটি দেয়ার পরপরই প্রবাসী ও দেশের সচেতন মহল ক্ষোভে ফুসে উঠে। দেশ-প্রবাসে বয়ে যায় প্রতিবাদর ঝড়। বিষয়টি টের পেয়ে জুলহাস মেম্বার তার ফেসবুক ওয়ালের স্ট্যাটাসটি ডিলেট করে দেন। রেমিটেন্স যোদ্ধা খ্যাত প্রবাসীদের নিয়ে null

null

nullবিরূপ মন্তব্য করার বিষয়টি কেউ মেনে নিতে পারছেন না। নাঙ্গলকোটের পেড়িয়া ইউনিয়নের বড় সাঙ্গিশ্বর গ্রামের বাহরাইন প্রবাসী মোহাম্মদ ফরহাদ প্রশাসন ও গণমাধ্যম কর্মীদের মাধ্যমে জুলহাসের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দাবি করেন। তিনি বলেন, প্রবাসীদের যে কোন বিষয়ে সরকার আন্তরিক। প্রবাসীরা অনেক কষ্টে টাকা উপার্জন করে দেশে রেমিটেন্স পাঠান।null

null

null কিন্তু জুলহাস মেম্বার যে মন্তব্য করেছেন তাতে শুধু প্রতিটি প্রবাসীই নয়, প্রতিটি দেশিপ্রেমিক মানুষের হৃদয়ে আঘাত করেছে। দ্রুত তাকে আইনের আওতায় আনার জোর দাবি জানাচ্ছি। অন্যথায় দেশ-প্রবাসে তার বিরুদ্ধে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। প্রয়োজনে তার বিরুদ্ধে মানহানির মামলাও করা হবে। এ বিষয়ে অভিযুক্ত জুলহাস মেম্বারের বক্তব্য null

null

nullজানার জন্য যোগাযোগের চেষ্টা করেও সম্ভব হয়নি।