ঢাকা, আজ বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০

সেনা ক্যাম্প থেকে মুসলিম বোনের কলিজা ছেড়া আর্তনাদ- “ওরা আমার গর্ভে কাফের জন্ম দিতে চায়”

প্রকাশ: ২০২০-০৫-২৪ ১২:০৭:১৭ || আপডেট: ২০২০-০৫-২৪ ১২:০৭:১৭

সার্বিয়ার সেনা ক্যাম্পে ধ’র্ষিতা মুসলিম বোন সামিরা তার বড় আপুর কাছে চিঠিতে লিখেছিল, আপু আমি আর পারছিনা। ওরা আমার গর্ভে কাফের সন্তান জন্ম দিতে চায়,কিন্তু আমি কোন খ্রিষ্টান সন্তান ভুমিষ্ঠ হতে দিব না! প্লিজ আপু আমার জন্য গ’র্ভপাত ন’ষ্টের ঔ’ষধ পাঠাও!null
null
null সামিরার ওই দিনের কলিজা ছে’ড়া আ’র্তনাদ শুনেও আমাদের বিবেক জাগ্রত হয়নি ইরাকের আবু গারিব কা’রাগারে ব’ন্দি মুসলিম বোন ফাতিমা ও নুর যখন জানালা দিয়ে চি’ৎকার করে বলেছিল, হে মুজাহিদ ভাইয়েরা তোমরা কোথায়? ওদের প্রতি রাতের অ’ত্যাচার আর সহ্য করতে পারছিনা! দেখুন ভিডিও ওরা যে আমাদের ম’রতেও দিচ্ছে না! null
null
nullতোমরা আমাদের উ’দ্ধার করতে না পারলে হ’ত্যা করে যাও! তখনও আমাদের বিবেক জাগ্রত হয়নি,,,!!! মুসলিম বিশ্বের গৌরব কুরআনের হাফিজা এবং সারা দুনিয়ার একমাত্র নিউরো বিজ্ঞানী ড.আফিয়া সিদ্দিকাও মার্কিন কা’রাগারে রাতের পর রাত ধ’র্ষিত হয়ে তিলে তিলে শেষ হয়ে গেল! তখনও আমাদের বিবেক জাগ্রত হলো না আরাকানnull
null
null জ্ব’ললো, মুসলিমদের র’ক্তে নাফ নদী র’ক্তিম বর্ণ ধারন করল! তারপরও আমাদের বিবেক জাগ্রত হলো না,,,,!!! আরেকজন হাজ্জাজ বিন ইউছুফের খুব বেশি প্রয়োজন, দেবলের রাজা দাহির কতৃর্ক মুসলিম যুবতী নাহিদার মাথার উড়না পদদলিত হওয়ার কথা শুনে হুং’কার দিয়ে উঠেছিল হাজ্জাজ! দাম্ভিক দাহিরের দাম্ভিকতার জবাব দিতে null
null
nullগিয়ে, সাথে সাথে মুহাম্মদ বিন কাসিম কে ভারত অ’ভিযানে প্রেরণ করে ছিলেন, চূর্ণ বিচুর্ন করে দিয়েছিলেন দেবল রাজত্ব পৃথিবীর সর্বত্র আজ মুসলিমরা নি’র্যাতিত! রক্ষা করার কেউ নাই, কোথায় মুহাম্মদ বিন কাসেম? কোথায় তারিক বিন যিয়াদ? কোথায় সালাহ উদ্দিন আইউবী? ফি’লিস্তিনে ই’হুদিরা মুসলিমদের হ’ত্যা, ধ’র্ষন করছে, আমরা null
null
nullনিরব,,,!!! চীনা বৌদ্ধরা উইঘোর মুসলিমদের হ’ত্যা করছে, আমরা নিরব! কাশ্মীরে ভারতীয় হি’ন্দুরা মুসলিমদের হ’ত্যা করছে…. আমরা নিরব! মিশরে সেকুলাররা মুসলিমদের হ’ত্যা করছে…… আমরা নিরব সিরিয়ায় ক্ষমতালোভী শিয়া বাশার আল আসাদের নির্দেশে সেনাবাহিনী মুসলিমদেরকে বি’দ্রোহী তকমা দিয়ে বো’ম্ব আর রাসায়নিক ক্যামিকেল null
null
nullগ্যাস মেরে নারী শিশু হ’ত্যা করছে….. আমরা নিরব,,,!!! আমাদের এই ঘুম কবে ভাঙবে??? ধিক্কার মুসলমান তোমার প্রতি!! তুমি না ওমরের জাতি? তুমি না আলীর জাতি? তুমি না খালিদ সাইফুল্লাহর জাতি! এখনও সময় আছে জেগে উঠো! তোমার ঈমানে কি ঘুণ ধরেছে? মুসলমানদের কোন বিষয় বা দুর্দিন চললেই তুমি গা ভাসিয়ে এড়িয়ে চল! নিজেকে আধুনিক ভেবে অসাম্প্রদায়িক সাজার বৃথা চেষ্টা করা! সুযোগ এখনোও আছে, শহিদি তামান্না বুকে নিয়ে এগিয়ে যাও সম্মুখপানে,null
null
null তোমাকে রুখবার সাধ্য কারো নাই, তোমার বিজয় সুনিশ্চিত ইনশাল্লাহ। না হয় প্রস্তুত থাকো!!! অসহায় মুসলিম নারী আর শিশুদের প্রশ্নের উত্তর দিয়ে কেয়ামতের ময়দানে তোমাকে জান্নাতে যেতে হবে!!! ইয়া আল্লাহ আমাদের সবাইকে ইসলামি চেতনায় উদ্বুদ্ধ করুন……. আমীন।এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল আগামী ৩১ মে প্রকাশ করা হবে। এ দিন সকাল ১০টায় প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে ভিডিও কনপারেন্সের মাধ্যমে চলতি বছর অর্থাৎ ২০২০ সালে অনুষ্টিত null
null
nullএসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল ও পরিসংখ্যান প্রকাশ করবেন। বৃহস্পতিবার (২১ মে) প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে পাঠানো এক পত্রের মাধ্যমে উল্লেখিত তারিখ ও সময়ের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। করোনাভাইরাসের কারণে অনিশ্চয়তার মুখে পড়া এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের প্রস্তুতি প্রায় সম্পন্ন করেছে শিক্ষা বোর্ডগুলো। তবে ঈদের আগে ফল প্রকাশ করা হচ্ছে না বলে সম্প্রতি জানিয়েছিলেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মাহবুব হোসেন। এদিকে null
null
nullসহজে আগে আগে খুদে বার্তার মাধ্যমে ফল জানার ব্যবস্থা করেছে শিক্ষা বোর্ডগুলো। ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের জ্যেষ্ঠ সিস্টেম অ্যানালিস্ট মঞ্জুরুল কবীর বলেন, এ জন্য সোমবার (১৮ মে) থেকে প্রাক নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। যারা এই প্রাক নিবন্ধন করবে, তারা প্রথম দিকে ফল পাবে। তবে আগের মতো নির্ধারিত পদ্ধতিতেও খুদে বার্তায় ফল জানা যাবে। নতুন ব্যবস্থায় প্রাক নিবন্ধন করা থাকলে সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীর মোবাইলে ফল জানিয়ে দেয়া হবে। প্রাক নিবন্ধনের জন্য যেকোনো মোবাইল null
null
nullঅপারেটরের নম্বর থেকে SSC Board Name (প্রথম তিন অক্ষর) Roll Year লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে। প্রতি এসএমএসের জন্য দুই টাকা চার্জ নেওয়া হবে। গত ফেব্রুয়ারিতে এসএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছিল। তাতে মোট পরীক্ষার্থী ছিল প্রায় সাড়ে ২০ লাখ। অন্যদিকে গত ১ এপ্রিল এইচএসসি পরীক্ষা শুরুর কথা ছিল। এবারের এইচএসসি পরীক্ষায় মোট পরীক্ষার্থী ১৩ লাখের বেশি। স্বাভাবিক সময় থাকলে এ মাসের প্রথম সপ্তাহের দিকে ফল প্রকাশের কথা ছিল। কিন্তু করোনার null
null
nullকারণে তা অশ্চিয়তার মুখে পড়ে। এ অবস্থায় কিছুদিন আগে শিক্ষা বোর্ডগুলোর পক্ষ থেকে বলা হয়, চলতি মাসের মধ্যেই ফল প্রকাশ করা হবে। সেই ধারাবাহিকতায় এবার ফল প্রকাশের তারিখ ঘোষণা করা হলো।